কবিতা ❝আল্লাহর অশেষ নিয়ামাত❞

❝ব্যাধি নামক নিয়ামাত❞

তাশরিফ সিদ্দিকী

আল্লাহ তুমি দয়ার সাগর, রহিম - রহমান

দিয়াছো কত নিয়ামত মোদের, করেছ কত দান,

তোমার দয়া ছাড়া আল্লাহ, আমরা অসহায়

তোমার মায়ায় বেঁচে আছি, আমরা সবাই।

তোমার ইবাদাত করিনা আল্লাহ, করছি শুধুই পাপ

তবুও তুমি দেওনা শাস্তি, করে যাচ্ছো মাফ,

করিলে সৃষ্টি তুমি মোদের, তুচ্ছ পানি দিয়ে

একবারও ভেবে দেখিনি মোরা, তোমার এই নিখূত সৃজন নিয়ে।

কেমন করে আকাশটাকে, খুটিহীন ভাবে রাখলে?

কেমন করেইবা মেঘ থেকে আবার, বৃষ্টির জন্ম দিলে?

দেখি তাকিয়ে আবার, বৃষ্টির পানির জোরে

শষ্য, ফলমূল গুলো, কি সুন্দর উঠছে গো আল্লাহ বেড়ে।

পাখিগুলো কি সুন্দর করে, শূন্যে উড়ে বেড়ায়

দেখলেই মনটা আমার, ঠান্ডা হয়ে যায়,

প্রকৃতিগুলোকে দিয়াছো তুমি, এতো সুন্দর রূপ

তাদের রূপের মহাসাগরে, দিতে মন চায় ডুব।

কখনো আল্লাহ রিজিক নিয়ে, ভাবতে হয়না মোদের

অদ্ভুদভাবে রিজিকের ব্যবস্থা, করে দাও তুমি মোদের,

যেখান থেকে রিজিক আসা, কখনো সম্ভব না

সেখান থেকেই রিজিক আসে বুঝতে পারিনা।

ধরার বুকে যখনি আমি, বিপদে পরে যাই

কারো কাছে কিছু না পেলেও, তোমার কাছে পাই,

এই ধরাতে আছে কত, হিন্দু,মুসলিম ও খ্রিষ্টান 

কাউকে তুমি করনা হতাশ, করে যাচ্ছো দান।

মুসলিম শুধু নামেই আমি, কাজে - কর্মে নই

এতো কিছুর পরেও আমি, সুখে - শান্তিতে রই,

সুখের সাগরে ডুবে আছি, সুখকে করে আপন

সুখের মোহে অন্ধ হয়ে, আল্লাহকে করেছি পর।

আনন্দেরই নৌকা আমার, সুখের সাগরে চলতে চলতে হায়

মাঝপথে এসে ডুবে গেল, এখন হবে কি উপায়?

কেমন করে ডুবলো নৌকা, জানতে কি সবাই চান?

তাহলে লেখাগুলো দয়া করে, একবার পড়ে যান।

এমন একটা ব্যাধি হয়েছে মোর, যাহার কোনো চিকিৎসা নাই

টাকা পয়সা সাথি স্বজন, সবাইকে হারাই,

যাদের জব্য করিলাম এতোকিছু, তারাই হইলো পর

থাকার জন্য এখন আমি, পাইনা কারো ঘর।

পাপে ভরা দুনিয়াটা, ধোকা দিয়ে ভরা

কেউ কাউকে বাসেনা ভালো, নিজে স্বার্থ ছাড়া, 

যাহার ভালোবাসায় নেইকো কবু, বিন্দুমাত্র স্বার্থ

তিনি হলেন মহান আল্লাহ, যাকে চিনতে মোরা হয়েছি ব্যার্থ।

যেই ব্যাধির জন্য আমি আজ হলাম স্বর্বহারা, সেই ব্যাধিই আজ মোর জিবনেতে, হেদাওয়াতার ধ্বারা,

ব্যাধির কোনো চিকিৎসা নাই, ডাক্তার সাহেবেরা কয়

আল্লাহ বলেন আমার কাছে কোনো ব্যাধিই ব্যাধি নয়।

আল্লাহর কাছে তওবা করলাম, অতিতেরই জন্য

আল্লাহ যেন কবুল করেন আমায়, তাহার দ্বীনেরই জন্য,

কয়দিন পর দেখি মোর ব্যাধি, হয়ে যায় ভালো 

ডাক্তার শুনে অবাক হলো, মুখটি করলো কালো,

কেমন করেই ব্যাধিটি তাহার, হয়ে গেল ভালো। 

একটি ব্যাধিই আমার জীবনের, পথকে করে দিল ভিন্য

সত্যি করেই বলছি ব্যাধি, তোমার কাছে আমি চিরতরে ধন্য,

এতো নিয়ামত দিয়েছেন আল্লাহ, চিনতে পারিনি আপনাকে

আপনি ছাড়া এই ধরাতে, ডাকবো না আর অন্য কাউকে।

জন্ম থেকে শুরু হলো, আপনার নিয়ামত ভোগ করা

তবুও মোরা কেমন করে থাকি, আপনার ইবাদাত ছাড়া,

এতো কিছু আমাদের জন্য, করিয়াছেন আপনি দান

তবুও আপনার করিনা শুকর, আমরা বড়ই নাফরমান।

করিনা তাওবা কখনো আমরা, করছি শুধু ভুল

ক্ষমা করে দিয়ে মোদের, দ্বীনের জন্য করিয়েন কবুল,

ব্যাধি নামক এই নিয়ামাত আল্লাহ, করিয়েন সবাইকে দান

আপনি আল্লাহ করুনাময়, আপনিই মহান।

Comments

You must be logged in to post a comment.

Related Articles
Recent Articles
Jul 23, 2022, 12:47 PM - TASRIF SIDDIQI